মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠানোর নিয়ম | কিভাবে জিমেইলে ছবি পাঠাবেন

মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠানোর নিয়ম

মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠানোর নিয়ম

মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠানোর নিয়ম

বন্ধুরা আজকের আর্টিকেল এর মাধ্যমে আমরা জানবো কিভাবে মোবাইল দিয়ে জিমেইল এ ছবি পাঠাতে হয়?

বর্তমানে ইমেইল জিমেইল অ্যাকাউন্ট ব্যবহার করে না বা জিমেইল অ্যাকাউন্ট নেই এরকম লোক খুব কমই খুঁজে পাওয়া যাবে।

কেননা আমরা যারা এন্ড্রয়েড মোবাইল অথবা কম্পিউটার ব্যাবহার করি এবং ইন্টারনেটের সাথে যাদের সামান্য পরিচিতি বা কানেকশন রয়েছে তারা প্রায় সকলেই ইমেইল ব্যবহার করে থাকি।

কিভাবে মোবাইল থেকে জিমেইলে ছবি বা picture পাঠানো যায়

প্রথমে একটি কথা বলে নেই, সাধারণভাবে আমরা ইমেইল বলতে জিমেইল অ্যাকাউন্ট (Gmail account) কে বুঝিয়ে থাকি।

কারণ জিমেইল অনেক জনপ্রিয় একটি ইমেইল সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান এবং এটি গুগলের সার্ভিস।

জিমেইল ছাড়াও অন্যান্য আরো কিছু ই-মেইল সেবা দাতা সাইট রয়েছে যেমন yahoo, hotmail ইত্যাদি।

তবে আমার জানা মতে বর্তমানে প্রায় অধিকাংশ মানুষ এই জিমেইল ঠিকানা খোলার জন্য জিমেইল ব্যবহার করে থাকেন।

কারণ যেহেতু অ্যান্ড্রয়েড গুগোল দ্বারা পরিচালিত তাই একটি এন্ড্রয়েড মোবাইল কেনার পরই জিমেইল অ্যাকাউন্ট তৈরি করতে হয়।

এমনিতে আমরা জিমেইল এর মাধ্যমে ফ্রিতে আমাদের বন্ধু-বান্ধব বা রিলেটিভ দের ইমেইল পাঠিয়ে থাকি এবং তাদের থেকে আসা ইমেইল গ্রহণ করি।

কিন্তু আপনি যদি সেই ইমেইল পাঠানোর সময় লেখার সাথে ছবি যোগ করে পাঠাতে চান, তাহলে নিচে আমি আপনাদের মোবাইল থেকে জিমেইল এ ছবি পাঠানোর নিয়ম দেখিয়ে দিবো।

মোবাইল থেকে জিমেইল এ ছবি পাঠানোর নিয়ম

জিমেইলের মাধ্যমে কাউকে ছবি, ফটো বা পিকচার পাঠাতে চাইলে প্রথমে আপনাকে গ্মেইল এপে প্রবেশ করতে হবে।

আপনি gmail.com ওয়েবসাইট ব্যবহার করতে পারেন৷ কিন্তু যেহেতু আমরা এন্ড্রয়েডে মোবাইল ব্যবহার করে জিমেইল পাঠাবো তাই আপনার মোবাইলের জিমেইল এপ্সে প্রবেশ করুন৷

এরপর gmail account এ লগিন করা না থাকলে জিমেইল এড্রেস ও পাসওয়ার্ড দিয়ে লগিন করে নিবেন। এরপর নিচের দিক থেকে প্লাস (+) আইকনটিতে ক্লিক করতে হবে৷ এরপর এরকম একটি ইন্টারফেস চলে আসবে।

এরপর from এ আপনার জিমেইল এড্রেস অটোমেটিক্যালি দিয়ে দেওয়া থাকবে।

To তে আপনি যাকে ইমেইল পাঠাতে চান তার জিমেইল এড্রেস দিতে হবে। মনে রাখবেন কাউকে জিমেইল পাঠাতে হলে তার জিমেইল এড্রেস আপনাকে আগে থেকেই জেনে নেওয়া থাকতে হবে।

তাই এখানে যাকে জিমেইলের মাধ্যমে ছবি বা পিকচার পাঠাতে চান তার জিমেইল এড্রেস এখানে লিখুন।

এরপর Subject নামে যে অপশনটি রয়েছে এখানে আপনার পছন্দমত একটি লিখুন যে বিষয়ে আপনার মেইলটি হবে। আপনি চাইলে এখানে কোন কিছু না লিখে ফাকা রেখে দিতে পারেন।

এরপর নিচের বক্সটিতে আপনার মেইলটি ভালোভাবে লিখুন। এরপর আপনি যে লাইনের পর আপনার ছবিটি যোগ করতে চান সেই লাইন পর্যন্ত লিখুন। যেমন আমি লিখেছি “Hello Friend! How are you”

এরপর এখানে আমি একটি ছবি যোগ করতে চাই। এজন্য আপনাকে উপরে ডানদিক থেকে থ্রি ডট যে মেনুটি রয়েছে সেখানে ক্লিক করতে হবে।

 

জিমেইল দিয়ে ছবি পাঠানোর নিয়ম

এরপর Attach File নামে অপশনটিতে ক্লিক করুন। এখানে নিচে আরেকটি অপশন থাকবে “Attach from Google Drive” নামে। এখানে ক্লিক করতে গুগল ড্রাইভ থেকে আপনি ছবি বা ফাইল পাঠাতে পারবেন।

Attach file এ ক্লিক করার পর আপনাকে মোবাইল ফোনের Gallery তে নিয়ে যাবে। সেখান থেকে আপনি যে ছবিটি পাঠাতে চান সে ছবিটি সিলেক্ট করবেন৷ সিলেক্ট করার পর আপনার মেইলের সেই যায়গায় ছবিটি যোগ হয়ে যাবে।

জিমেইল দিয়ে ছবি পাঠানোর নিয়ম

আপনি চাইলে এভাবে আরো ছবি আপনার ইমেইল এর মেসেজের মধ্যে যোগ করতে পারেন।

আমরা সাধারণত ইমেইলে ছবি যুক্ত করি ইমেইলটিকে আকর্ষণীয় করে তোলার জন্য।

এভাবে আপনি মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠাতে পারবেন।

আপনি যদি কাউকে কোন ওয়েলকাম ইমেইল পাথাতে চান তাহলে ইমেইল টেক্সটের সাথে ভালো ডিজাইনের ছবি যোগ করে নিয়ে ইমেইলটিকে আকর্ষণীয় করে নিতে পারেন।

আপনি যদি জানতে চান যে, কিভাবে ইমেইল চেক করে বা ইমেইল চেক করে কিভাবে? আপনাকে যদি কেউ ইমেইল পাথায় তাহলে তা কিভাবে চেক করে দেখবেন দেখুন।

ইমেইল চেক করা বা দেখার জন্য আপনাকে জিমেইল একাউন্ট এ প্রবেশ করতে হবে। জিমেইল একুন্টে প্রবেশ করলেই আপনি উপরের দিক থেকে দেখতে পারবেন আপনাকে কে কে মেইল পাঠিয়েছে।

আমার শেষ কথা

বন্ধুরা আশা করি “মোবাইল থেকে ইমেইলে ছবি পাঠানোর নিয়ম” সম্পর্কে এই আর্টিকেলটি আপনাদের ভালো লেগেছে। আপনার যদি জিমেইল একাউন্ট না থাকে তাহলে একটি জিমেইল একাউন্ট খুব সহজে নিজেই তৈরি করে নিতে পারেন মাত্র কয়েকটি স্টেপ এর মাধ্যমে।

কিভাবে জিমেইল একাউন্ট তৈরি করতে হয় সে বিষয়ে একটি আর্টিকেল এর লিংক আমি উপরে দিয়ে দিয়েছি। সেটি আপনারা দেখতে পারেন। আর যদি কোন প্রশ্ন থেকে থাকে তাহলে নিচে অবশ্যই কমেন্ট করে আমাকে জানিয়ে দিবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *