Skip to content

ক্রোমোজোম কি ? ক্রোমোজোম কে আবিষ্কার করেন

ক্রোমোজোম কি ? ক্রোমোজোম কাকে বলে ? (What is Chromosome in Bengali)

ক্রোমোজোম কি

ক্রোমোজোম (chromosome) কি ?

ক্রোমোজোম কি ? (Cromosome)

প্রতিটি প্রকৃত কোষবিশিষ্ট জীবের নিউক্লিয়াসের নিউক্লিওপ্লাজমে অনেক ক্রোমাটিন ফাইবার বা তন্তু থাকে। এগুলো কোষের স্বাভাবিক অবস্থায় নিউক্লিয়াসের ভিতরে বিশৃংখল অবস্থায় থাকে।

কোষ বিভাজনের সময় পানি বিয়োজনের ফলে এগুলো স্পষ্ট আকার ধারণ করে এবং আকারে এগুলো সুতার মতো হয়। এগুলোকে ক্রোমোজোম বলে।

ক্রোমোজোম কাকে বলে ?

ক্রোমোজোম কোষ বিভাজনের প্রোফেজ ও মেটাফেজ দশায় ক্রোমোজোমগুলো স্পষ্ট হয়। প্রতিটি প্রজাতির কোষে ক্রোমোজোম সংখ্যা সবসময় নির্দিষ্ট।

অর্থাৎ একটি প্রজাতির প্রাণী অথবা উদ্ভিদ কোষে যদি ১২ টি ক্রোমোজোম থাকে, তাহলে সেই প্রজাতির সকল সদস্যের কোষে ক্রোমোজোম সংখ্যা ১২ টি থাকবে।

ক্রোমোজোমের আকৃতি ও গঠন

ক্রোমোজোমের আকার সাধারণত লম্বা । প্রতিটি ক্রোমোজোমের দেহ দুই গুচ্ছ সুতার মতো অংশ নিয়ে গঠিত।

প্রতিগুচ্ছ সুতার মতো অংশকে ক্রোমোনেমা, বহুবচনে ক্রোমোনেমাটা বলে। কোষ বিভাজনের সময় প্রতিটি ক্রোমোজোম সমান দুভাগে বিভক্ত হয়ে যায়। এদের প্রতিটিকে ক্রোমাটিড বলে।

প্রতিটি ক্রোমাটিড একটি ক্রোমোনেমা নিয়ে গঠিত।

বর্তমানে কোষতত্ত্ববিদরা বলেন ক্রোমাটিড ও ক্রোমোনেমা ক্রোমোজোমের একই অংশের দুটি নাম।

মাইটোসিস কোষ বিভাজনের মেটাফেজ দশায় প্রত্যেকটি ক্রোমোজোমে যে গোলাকৃতি ও সংকুচিত স্থান দেখা যায়, তার নাম সেন্ট্রোমিয়ার।

অনেকে আবার একে কাইনেটোকোরও বলে। ক্রোমোজোমের সেন্ট্রোমিয়ারের উভয় পার্শ্বের অংশকে বাহু বলা হয়।

পূর্বে ধারণা করা হতো ক্রোমোজোম একটা মাতৃকা বা ধাত্র দ্বারা আবৃত। কিন্তু প্রকৃত পক্ষে এটি কিছু প্রোটিন ও অজৈব পদার্থের সমাবেশ যা ইলেক্ট্রন মাইক্রোস্কোপ ছাড়া দেখা যায় না।

ক্রোমোজোমের প্রকারভেদ

উচ্চ শ্রেণির প্রাণী বা উদ্ভিদের কোষের ক্রোমোজোমের মধ্যে প্রকারভেদ দেখা যায়। এদের দেহকোষে যতগুলো ক্রোমোজোম থাকে, তাদের মধ্যে এক জোড়া ক্রোমোজোম অন্যান্য ক্রোমোজোম থেকে ভিন্নধর্মী।

এই ভিন্নধর্মী ক্রোমোজোমকে সেক্স ক্রোমোজোম বলা হয়।

বাকি ক্রোমোজোমগুলোকে অটোজোম (Autosome) বলা হয়।

সেক্স ক্রোমোজোমগুলোকে সাধারণত X ও Y নামে নামকরণ করা হয়ে থাকে।

মানুষের প্রতিটি দেহকোষে ২৩ ক্রোমোজোম রয়েছে। এগুলোর মধ্যে ২২ জোড়া নারী ও পুরুষে একই রকম এবং এগুলো জোড়া অর্থাৎ ৪৬ টি অটোজোম।

কিন্তু ২৩ তম জোড়ার ক্রোমোজোেম নারী ও পুরুষ সদস্যে ভিন্নতর এবং এগুলো সেক্স ক্রোমোজোম।

যার দেহে ২৩ তম ক্রোমোজোম জোড়া XX সে ব্যক্তি নারী, অপরদিকে যার দেহে ২৩ তম ক্রোমোজোম জোড়ার একটি x ও অন্যটি Y ক্রোমোজোম অর্থাৎ XY সে ব্যক্তি পুরুষ।

যাবতীয় বৈশিষ্ট্য অটোজোমে অবস্থিত জিন দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হলেও লিঙ্গ নির্ধারিত হয় সেক্স ক্রোমোজোমের মাধ্যমে।

ক্রোমোজোম কি ?

Leave a Reply

Your email address will not be published.